বৃহস্পতিবার, ০২ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ০৯:১২ অপরাহ্ন
ব্রেকিং নিউজ
এমপি বাহারের ধারাবাহিক উন্নয়নে কুমিল্লায় শিক্ষাঙ্গনগুলোতে সুন্দর পরিবেশ বিরাজ করছে :  মেয়র রিফাত  জাতীয় সাংবাদিক সংস্থা’র বুড়িচং উপজেলা কমিটি গঠন, জাবির সভাপতি হৃদয় সাধারণ সম্পাদক কুমিল্লার সদর দক্ষিণে গাঁজাসহ দুই মাদক কারবারি গ্রেফতার কুমিল্লায় চুরি হওয়া ১১ মোটরসাইকেল উদ্ধার, সঙ্ঘবদ্ধ চোর চক্রের ৯ সদস্য গ্রেফতার কুমিল্লা জেলা পুলিশের নতুন ডিআইও- ওয়ান ফজলে রাব্বি কুমিল্লায় ভুয়া ডিবি পুলিশ চক্রের এক সদস্য আটক কুমিল্লার চৌদ্দগ্রামে অটো চালকের ঘাতক গ্রেফতার কুমিল্লার মুরাদনগরে মাটি কাটা চক্রের হাতে বিনষ্ট প্রায় ৭শ বিঘা কৃষি জমি কুমিল্লা সদর দক্ষিনে ফেনসিডিলসহ মাদক কারবারি আটক নগরীর হাউজিং এস্টেটে সম্পত্তির দ্বন্দ্বে পিতার লাশের সামনে মেয়ে ও সৎ মায়ের ধস্তাধস্তি কুমিল্লার জনপ্রিয় ক্রীড়া সংগঠক ও সামাজিক ব্যক্তিত্ব সাইফুল ইসলাম জানু আর নেই কুমিল্লায় দুই শিশু হত্যা মামলায় একজনের মৃত্যুদন্ড অপরজনের যাবজ্জীবন কারাদণ্ড ভোলার নূরে আলম গাঁজাসহ কুমিল্লা নগরীর কাপ্তানবাজারে আটক বুড়িচংয়ে পারিবারিক কলহের জেরে কলেজ ছাত্রের আত্মহত্যা  চট্টগ্রামে প্রকল্প পরিচালকের ওপর হামলার ঘটনার প্রতিবাদে এলজিইডি কুমিল্লা দফতরের মানববন্ধন দাউদকান্দিতে কাভার্ডভ্যান চাপায় বাখরাবাদ গ্যাস অফিসের গাড়ী চালক নিহত দাউদকান্দিতে আওয়ামী লীগ নেতার গাড়িতে হামলা ও ভাঙচুরের ঘটনায় ৫ আসামি গ্রেফতার এক লাখ ২০ হাজার টাকা জরিমানা গুনলো কুমিল্লার নুরজাহান ও ছন্দু হোটেল কুমিল্লায় ‘নিরাপদ অভিবাসন ও দক্ষতা উন্নয়ন’ শীর্ষক সেমিনার অনুষ্ঠিত মুরাদনগরের সবুজ ১১৩৬ বোতল বিদেশী মদসহ কুমিল্লা নগরীর টমছমব্রীজে আটক

কুমিল্লায় চা বিক্রেতার জন্য বরাদ্দ `আশ্রয়ন প্রকল্পের ঘর’ এখন ইউপি সদস্যের !

মো. আবদুল আলিম খান, বিশেষ প্রতিনিধি, কুমিল্লা
  • আপডেট টাইম সোমবার, ৫ অক্টোবর, ২০২০
  • ২১৫ দেখা হয়েছে

 আশ্রয়ন প্রকল্প-২ এর আওতায় নির্মিত ঘর। ইনসেটে ইউপি মেম্বার জাকির হোসেন # 

দেড় বছর আগে কুমিল্লার ব্রাহ্মণপাড়া উপজেলার চান্দলা ইউনিয়নের বড়ধুশিয়া মধ্যপাড়া গ্রামের মাইনুদ্দিন নামের এক চা বিক্রেতা প্রধানমন্ত্রীর উপহার আশ্রয়ন প্রকল্প-২ এর আওতায় কাগজে কলমে একটি ঘর বরাদ্দ পেলেও বাস্তবে ওই ঘরে থাকার সুযোগ হয়নি তার।
কারণ স্থানীয় ইউপি মেম্বার দেড় বছর ধরে ঘরটি নিজের দখলে রেখে পরিবার নিয়ে বসবাস করছেন।

পৈত্রিকসুত্রে পাওয়া ছোট্ট ভিটায় ছিল ছাপড়া ঘর। আর এখানেই স্ত্রী সন্তান নিয়ে অনেকটা কষ্টেই জীবন কাটতো চা বিক্রেতা মাইনুদ্দিনের। ২০১৯-২০২০ অর্থবছরে ‘জমি আছে ঘর নাই’ প্রধানমন্ত্রীর উপহার আশ্রয়ন প্রকল্প-২ এর আওতায় মাইনুদ্দিনের নামে একটি ঘর বরাদ্দ আসে। যথারীতি ব্রাহ্মণপাড়া উপজেলা ত্রাণ ও পুর্নবাসন অফিস বাড়িটি নির্মান কাজ শেষ করে। কিন্তু ঘরটি বুঝে পায়নি মাইনুদ্দিন।

তবে ঘরটি পাওয়ার জন্য মাইনুদ্দিন স্থানীয় ইউপি মেম্বার জাকির হোসেনের সঙ্গে যোগাযোগ করে। আর তখনই ইউপি মেম্বার সাফ জানিয়ে দেয় ঘর পেতে হলে তাকে ৩০ হাজার টাকা দিতে হবে।

মাইনুদ্দিনের পক্ষে টাকা দেয়া অসম্ভব হয়ে পড়ায় চান্দলা ইউনিয়নের ৭ নং ওয়ার্ডের সদস্য (মেম্বার) জাকির হোসেন পরিবার নিয়ে ‘প্রধানমন্ত্রীর উপহার আশ্রয়ন প্রকল্প’র ঘরে নিজেই বসবাস শুরু করেন।

সম্প্রতি বিষয়টি জানাজানি হলে গ্রামে ব্যাপক চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়।স্থানীয়দের অনেকেই হতদরিদ্র মাইনুদ্দিনের পক্ষ নেয়, যাতে সে ঘরটি ফিরে পায়।এক পর্যায়ে স্থানীয়রা ব্রাহ্মণপাড়া উপজেলা নির্বাহী অফিসার বরাবর স্মারকলিপি পেশ করে মাইনুদ্দিনের ঘর ফিরে পাবার জন্য।

চা বিক্রেতা মাইনুদ্দিন জানায়, জাকির মেম্বার তার কাছে ৩০ হাজার টাকা চেয়েছিল। টাকা দিতে না পারায় তাকে আর ঘর দেয়া হয়নি। এরপর থেকে জাকির মেম্বারই ওই ঘরে থাকছে।

চান্দলা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মোস্তবা আলী শাহীন বলেন, ‘এধরণের কোন কোন অভিযোগ আমার কাছে আসেনি।’

ইউপি মেম্বার জাকির হোসেন বলেন, ‘মাইনুদ্দিন আমার চাচাতো ভাই। সে এই বাড়ি ছেড়ে অন্যত্র চলে যাওয়ায় আমি নিজেই এই বাড়িতে বসবাস করছি।’

ব্রাহ্মণপাড়া উপজেলা নির্বাহী অফিসার ফৌজিয়া সিদ্দিকা বলেন, ‘এই ঘর অসহায় গৃহহীনদের জন্য বরাদ্দ। ওই মেম্বারের বিরুদ্ধে ঘটনার সত্যতা পেলে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।’

#দেশবিদেশের গুরুত্বপূর্ণ খবর জানতে protisomoy ফেসবুক পেইজে লাইক দিয়ে এবং protisomoy news ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করে অ্যাকটিভ থাকুন 

Last Updated on October 5, 2020 1:50 pm by প্রতি সময়

শেয়ার করুন
এই ধরনের আরও খবর...

বিস্তারিত জানতে ছবিতে ক্লিক করুন।

themesba-lates1749691102