সোমবার, ৩০ জানুয়ারী ২০২৩, ০১:১৬ পূর্বাহ্ন
ব্রেকিং নিউজ
কুমিল্লা নগরীর আনন্দধারা বিদ্যাপীঠে ক্রীড়া প্রতিযোগিতার পুরস্কার বিতরণ কুমিল্লার লালমাই বাজারে চার প্রতিষ্ঠানকে জরিমানা দাউদকান্দিতে এমপির সেচ্ছাধীন তহবিলের আর্থিক অনুদান পেল অসহায় ও হতদরিদ্র পরিবার আলোকিত শিক্ষা প্রতিষ্ঠান নজরুল মেমোরিয়াল একাডেমীর বর্ণাঢ্য বার্ষিক ক্রীড়ানুষ্ঠান বুড়িচংয়ে মিথলমা সমাজ কল্যাণ ট্রাস্টের উদ্যোগে দুস্থদের আর্থিক সহায়তা দেবিদ্বারে ইটভাটার ট্রাক্টরে পিষ্ট হয়ে শিশুর মৃত্যু কুমিল্লায় ফেন্সিডিল ও গাঁজাসহ দুই জন আটক মুরাদনগরে বীর মুক্তিযোদ্ধা সন্তান ফাউন্ডেশনের কার্যালয় উদ্বোধন বই মেলায় কুবি শিক্ষকের প্রথম উপন্যাস ‘মহারাজাধিরাজ’ অধুনা থিয়েটারের নাট্যউৎসবের লোগো উন্মোচন অবশেষে কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক মুর্শেদ রায়হানকে অব্যাহতি ব্রাহ্মণপাড়ায় মেয়ের জন্য পাত্র দেখতে যাওয়ার পথে সড়ক দুর্ঘটনায় প্রাণ গেলো পিতার চৌদ্দগ্রামে ট্রাক চাপায় মোটরসাইকেল আরোহী নিহত দেবীদ্বার উপজেলা আ’লীগের কার্যনির্বাহী কমিটি স্থগিত তজুমদ্দিনে পাঠাভ্যাস উন্নয়ন কর্মসূচির উদ্বুদ্ধকরণ কর্মশালা নগরীর ফুটপাতে কুসিকের উচ্ছেদ অভিযান ভাষায় দক্ষতা অর্জনই নিজেকে এগিয়ে নেবে : এলজিআরডি মন্ত্রী কায়কোবাদের নির্দেশে কুমিল্লার বিক্ষোভ সমাবেশে মুরাদনগরের শতশত নেতাকর্মী মুরাদনগরে স্কুলছাত্রীকে উত্ত্যক্ত করায় বাহেরচর গ্রামের জাকির গ্রেফতার প্রধানমন্ত্রীর ভিশন ‘স্মার্ট বাংলাদেশ’ গড়তে স্মার্ট শিক্ষার্থী গড়তে হবে -মেয়র রিফাত

গাজীপুরের দুর্ধর্ষ অপরহণকারী চক্রের ৬ সদস্য গ্রেফতার : মুক্তিপণ না পেলে খুন করত অপহৃতকে

মো. দেলোয়ার হোসেন, স্টাফ রিপোর্টার, গাজীপুর
  • আপডেট টাইম বৃহস্পতিবার, ৪ ফেব্রুয়ারী, ২০২১
  • ১৮২ দেখা হয়েছে

ওরা দুর্ধর্ষ অপহরণকারী। যাদের টার্গেট স্কুল পড়ুয়া শিশু-কিশোর অপহরণ করে মুক্তিপণ দাবি, আর মুক্তিপণের অর্থ না পেলে খুনের মতো জঘন্য কাজটি করতেও দ্বিধা করত না ওরা।গেলো জানুয়ারি মাসে গাজীপুর, ঢাকা, শেরপুর, নরসিংদী, মুন্সিগঞ্জ, মানিকগঞ্জ, ময়মনসিংহসহ দেশের বিভিন্ন জেলায় ১৭টি অপহরণের ঘটনা ঘটিয়েছে।শিশু-কিশোরদের কাছে বাবার বন্ধু পরিচয়ে, বাবা সড়ক দুর্ঘটনায় আহত হয়েছে, রাস্তায় মায়ের স্ট্রোক হয়েছে, হাসপাতালে আছে-এসব কথা বলে কিছু বুঝে ওঠার আগেই অপহরণ করে নিয়ে যায় নিজেদের গন্তব্যে।

এধরণের অপহরণ ঘটনার মূল চক্রের ৬জনকে গ্রেফতার করেছে গাজীপুর মেট্রোপলিটন পুলিশের গোয়েন্দা বিভাগ। বুধবার (৩ ফেব্রুয়ারি) রাতে গাজীপুরের বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালিয়ে ওই ৬জনকে গ্রেফতার করা হয়। গ্রেফতারকৃতরা হলো- গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের সালনা পলাশটেক এলাকার আব্দুল নবীর ছেলে মিল্টন মাসুম (৩৫) এবং তার স্ত্রী মোছাম্মৎ খালেদা আক্তার (৩৬), সাতক্ষীরা দেবহাটা খেজুরবাড়ীয়া এলাকার ওজিহারের ছেলে মো: শাহিন আল (৩৬), গাজীপুর জেলার কালিয়াকৈর উপজেলার জানের চালা এলাকার আব্দুল সবুরের ছেলে মামুন হোসেন (২৮), শেরপুর জেলা ও থানার দোপাঘাটের মো: চাঁন মিয়ার ছেলে মো: ইউসুফ মিয়া (৩৬), ব্রাহ্মণবাড়ীয়ার আখাউড়া থানার রাজাপুর এলাকার মৃত কুদ্দুস চৌকিদারের ছেলে হাসান চৌধুরী (৪৫)।আর গ্রেফতারকৃতদের মুখ থেকেই বেরিয়ে এসেছে অপরহণের লোমহর্ষক সব ঘটনা।

বৃহস্পতিবার (৪ ফেব্রুয়ারি) দুপুরে গাজীপুর মেট্রোপলিটন পুলিশ হেডকোয়ার্টার্সে এক প্রেস ব্রিফিংয়ে এসব তথ্য জানান গোয়েন্দা পুলিশের উপ-কমিশনার (দক্ষিণ) মোহাম্মদ নূরে আলম।

প্রেসব্রিফংয়ে তিনি জানান, গত ২৩ জানুয়ারি গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের গাছা থানার জাঝর বিশ্ব রোড থেকে অপহরণ করা হয় টঙ্গীর শফি উদ্দিন স্কুল এন্ড কলেজের নবম শ্রেণির ছাত্র তানভীর হোসেন সিয়ামকে (১৫)। এ ঘটনায় ২৪ জানুয়ারি গাছা থানায় একটি মামলা দায়ের করেন গাছা এলাকার অপহৃত স্কুল ছাত্র সিয়ামের বাবা আবদুল জলিল।  ২৫ জানুয়ারি গাজীপুর মেট্রোপলিটন পুলিশের গোয়েন্দা বিভাগের (দক্ষিণ)একটি দল অভিযান চালিয়ে নগরীর ধান গবেষণা ইনস্টিটিউটস এলাকা থেকে সিয়ামকে উদ্ধার করে।

এরপর গোয়েন্দা পুলিশের উপ-কমিশনার (দক্ষিণ) মোহাম্মদ নূরে আলমেআরও জানান, সিয়াম কোচিং সেন্টার থেকে বাসায় ফেরার পথে অপহরণকারীর চক্রের একজন সিয়ামের কাছে এসে তার বাবার বন্ধু পরিচয় দেয়।পরে সিয়ামের কাছ থেকে তার বাবার মোবাইল নম্বর নিয়ে তাকে কল করে। অপর প্রান্ত থেকে কিছু বলার আগেই  অপহরণকারি বলে ‘ভাই আমি আপনার ছেলেকে নিয়ে গেলাম আমার মেয়ে মিলির জন্মদিন, বাসাটাও চিনে আসবে’- এমন কথা বলে ফোন কেটে দেয়।এসময় সিয়ামকে তার বাবার সাথে কথা হয়েছে বলে মোটর সাইকেলে করে অপহরণ করে। কয়েক ঘন্টা পরে সিয়ামের বাবার নম্বরে আবার কল করে অপহরণের বিষয়টি জানায় এবং মুক্তিপণ হিসেবে এক লাখ টাকা দাবি করে।অন্যথায় হত্যার হুমকি দেয়। সিয়ামের পরিবার থানায় মামলা দায়ের করলে প্রথমে সিয়কে উদ্ধার ও পরে  অপহরণকারী দলের ৬ জনকে গ্রেফতার করা হয়।

প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে অপহরণকারীরা জানিয়েছে, তারা একটি চক্র। তারা দেশের বিভিন্ন জেলা থেকে অপহরণ করে গাজীপুরে এনে মুক্তিপণ দাবি করতো। মুক্তিপণের টাকা গ্রেফতারকৃত মিল্টন মাসুমের স্ত্রী খালেদা আক্তারের বিকাশ নম্বরে নেয়া হতো। মুক্তিপণ না পেলে তারা অপহৃতকে খুন করতো। গ্রেফতারকৃদের নামে গাজীপুরসহ দেশের বিভিন্ন থানায় অপহরণ, খুন, মাদক, ছিনতাই ও ডাকাতির একাধিক মামলা রয়েছে।

 # দেশ-বিদেশের গুরুত্বপূর্ণ খবর জানতে প্রতিসময় ডট কম ( protisomoy.com) এ চোখ রাখুন এবং প্রতিসময় protisomoy ফেসবুক পেইজে লাইক দিন। এছাড়াও protisomoy ইউটিউব চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুন এবং বেলবাটন ক্লিক করে নতুন নতুন সংবাদ ও বিনোদন ভিডিও পেতে আমাদের সাথে থাকুন। ধন্যবাদ

Last Updated on February 4, 2021 10:27 pm by প্রতি সময়

শেয়ার করুন
এই ধরনের আরও খবর...

বিস্তারিত জানতে ছবিতে ক্লিক করুন।

themesba-lates1749691102