বুধবার, ২৯ মে ২০২৪, ১১:১৮ পূর্বাহ্ন
ব্রেকিং নিউজ
চেতনানাশক জুস খাইয়ে চালককে হত্যা, অটোরিকশা ছিনতাইচক্রের পাঁচ সদস্য গ্রেফতার লালমাইয়ের সুমিষ্ট পাহাড়ি কাঁঠালের সাতকাহন সাদিক মামুনের কবিতা ‘তোমাতেই খুঁজে পাই’ নগরীর নূর আইডিয়াল স্কুলের টিনের চালে নির্মাণাধীন ভবনের পিলার পড়ে ছাত্র নিহত পুকুর পাড়ে বিষের বোতল! ভেসে ওঠেছে বিভিন্ন প্রজাতের মাছ চান্দিনায় আধুনিক মাছ চাষ পদ্ধতি উন্নতিকরণ বিষয়ক সভা অনুষ্ঠিত কুবি শিক্ষক সমিতির ‘না’ বরুড়া উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তার বিদায়-বরণ অনুষ্ঠিত তদন্ত কমিটির প্রতিবেদনে অনাস্থা কুবি শিক্ষক সমিতির ব্রাহ্মণপাড়া পুলিশের অভিযানে ৭৫ বস্তা ভারতীয় চিনি জব্দ, দুইজন গ্রেফতার কুমিল্লা জুড়ে কবি নজরুলের সঙ্গীত ও সাহিত্যের বর্ণিল অধ্যায় আটক ৩৯ কিশোরকে মুচলেকায় ছাড়িয়ে নিল অভিভাবকরা দেবিদ্বারে চেয়ারম্যান প্রার্থী সাহিদার প্রচারণায় সাবেক এমপি রাজী ফখরুল কুমিল্লার নাঙ্গলকোটে বিদ্যুৎস্পৃষ্টে ব্যবসায়ীর মৃত্যু কুমিল্লার নাঙ্গলকোটে সাংবাদিকদের সঙ্গে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার মতবিনিময় শিক্ষার্থীর সৃজনশীল মেধা বিকাশে শিক্ষকের ভূমিকা ‘কুমিল্লা আরবান টিউশনি মিড়িয়া’ হাতিয়ে নিয়েছে কুবি শিক্ষার্থীদের অর্থ লক্ষাধিক টাকা কুমিল্লার মুরাদনগর বিএনপির প্রবীণ নেতা মতি মাষ্টারের ইন্তেকাল  কুমিল্লার নাঙ্গলকোটে স্ত্রীকে শ্বাসরোধে হত্যার দায়ে স্বামীর মৃত্যুদণ্ড বিজয়নগরে যৌনকর্মী হত্যার দায়ে দুই জন গ্রেফতার

চৌয়ারা বাজারের গরুর হাটে চাঁদাবাজি ! কমে যাচ্ছে বেপারীর সংখ্যা

প্রতিসময় রিপোর্ট
  • আপডেট টাইম সোমবার, ৪ জানুয়ারী, ২০২১
  • ৩০৯ দেখা হয়েছে
# ফাইলফটো

চাঁদাবাজির কারণে বেপারীর সংখ্যা কমে যাচ্ছে কুমিল্লা সদর দক্ষিনের ঐতিহ্যবাহী চৌয়ারা বাজারের গরুর হাটে।ইজারাদারের কাছে বেপারীরা চাঁদাবাজির নালিশ নিয়ে আসলেও কোন প্রতিকার পাচ্ছেন না।কারণ ইজারাদারও এখানে অসহায়।হাটের ইজারাদার ও ব্যাবসায়ীরা এ বিষয়ে প্রশাসনের হস্তক্ষেপ কামনা করছেন ।

সীমান্তবতী এলাকার এই গরু-ছাগলের হাটে একসময় চোরাই পথে প্রচুর ভারতীয় গরু আসত।সীমান্তে কড়াকড়ির কারণে এখন সীমান্তে দিয়ে ভারতীয় গরু না আসলেও দেশের বিভিন্ন এলাকা থেকে আসা পশুবাহী যানবাহন ঘিরে প্রশাসনের নাম ভাঙ্গিয়ে স্থানীয় একটি চক্র চাঁদাবাজি করছে বলে অভিযোগ রয়েছে।

গরু ব্যাবসায়ী আলম মিয়া,জামশেদ আলম, আবদুল মান্নান, শহিদুল ইসলাম,জসিম উদ্দিন,মোবারক হোসেন জানান, পথে পথে চাঁদাবাজির শিকার হচ্ছেন গরু বেপারীরা। দেশের বিভিন্ন জেলা থেকে চৌয়ারা বাজার পর্যন্ত পৌঁছতে নানা কায়দায় গরু প্রতি পাঁচশ থেকে ১ হাজার টাকা পর্যন্ত চাঁদা দিতে হচ্ছে। গরুবাহী ট্রাক বাজারে প্রবেশ করতে ১ হাজার থেকে ২ হাজার টাকা চাঁদা দিতে হয়।
গরু ব্যবসায়িরা জানান, যারা চাঁদা তুলে তারা অজুহাত দেখাচ্ছেন সদর দক্ষিন মডেল থানা, ডিবি পুলিশ ও স্থানীয় যশপুর বিজিবি ক্যাম্পসহ আইন শৃংখলা বাহিনী ও এলাকার প্রভাবশালীদের মাসোহারা দিতে হয়।

যশপুর বিওপি ক্যাম্পের নায়ক সুবেদার মাহাবুবুর রহমান ও হাবিলদার সাহাবুদ্দিন জানান, ‘এ এলাকায় সীমান্ত দিয়ে অবৈধ পথে কোন ভারতীয় গরু আসেনা।আর চাঁদাবাজির বিষয় তাদের জানা নেই। বিজিবির নাম ভাঙ্গিয়ে কেউ চাঁদা নিয়ে থাকলে সঠিত তথ্য দিলে উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে বিষয়টি অবহিত করা হবে।’

চৌয়ারা গরুর হাটের ইজারাদার মো.রফিকুল ইসলাম জানান, বছরে ৩৬ লাখ ৫২ হাজার টাকা দিয়ে চৌয়ারা গরু-ছাগলের হাটের ইজারা নিয়েছেন। আগে শনিবার,মঙ্গলবার ও বৃহস্পতিবার সপ্তাহে তিন দিন বাজার বসলেও এখন শনিবার ও মঙ্গলবার এ দুই দিন বাজার বসে। শীতের মৌসূমে গরু বেচা-বিক্রি কম হয়ে থাকে। হাটে চাঁদাবাজি হয়, বিষয়টি স্বীকার করে তিনি বলেন,প্রায়ই গরু বেপারীরা চাঁদাবাজির বিষয়ে অভিযোগ নিয়ে আসেন। প্রশাসনের নাম বলে তারা টাকা উঠায়। আসলে প্রশাসনের কেউ জড়িত কিনা তা তিনি নিশ্চিত নন।তবে বাজারের সুনাম রক্ষায় প্রশাসনের হস্তক্ষেপ জরুরী।

গলিয়ারা ইউনিয়নের মুদ্দুদ গ্রামের মনির হোসেন জানান, ‘আমি এখন আর হাটের চাঁদা তোলা এসবের সাথে জড়িত নই। এখন অন্য লোকজন চাঁদা উঠায়। কারা চাঁদা উঠায় এমন প্রশ্নের জবাবে মনির জানায়- খোঁজ নিলেই জানতে পারবেন।’

কুমিল্লা সদর দক্ষিণ মডেল থানার ওসি দেবাশীষ চৌধুরী জানান, ‘চৌয়ারা গরু বাজারে চাঁদাবাজির অভিযোগটি আজই জানলাম। এ বিষয়ে গোয়েন্দাা নিয়োগ করে খোঁজ নেওয়া হবে। চাঁদাবাজি বিষয়ে কাউকে ছাড় দেওয়া হবে না। সত্যতা পেলে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।’

# দেশ-বিদেশের গুরুত্বপূর্ণ খবর জানতে প্রতিসময় ডট কম protisomoy.com –এ চোখ রাখুন এবং প্রতিসময় protisomoy ফেসবুক পেইজে লাইক দিন। এছাড়াও protisomoy ইউটিউব চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুন এবং বেলবাটন ক্লিক করে নতুন নতুন সংবাদ ও বিনোদন ভিডিও পেতে আমাদের সাথে থাকুন। ধন্যবাদ

Last Updated on January 4, 2021 8:19 pm by প্রতি সময়

শেয়ার করুন
এই ধরনের আরও খবর...

বিস্তারিত জানতে ছবিতে ক্লিক করুন।

themesba-lates1749691102