সোমবার, ২৭ জুন ২০২২, ০৫:১৩ পূর্বাহ্ন
ব্রেকিং নিউজ
সদর দক্ষিণে ১০০কেজি গাঁজাসহ দুই জন আটক  দেবীদ্বারে আওয়ামী লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত কুমিল্লায় মাদক বিরোধী আন্তর্জাতিক দিবস পালিত ব্যাংককে গ্লোবাল ইয়ুথ লিডারশিপ অ্যাওয়ার্ড পেলেন এমপি বাহারকন্যা সূচনা কুমিল্লায় পদ্মা সেতুর উদ্বোধন উপলক্ষে বিশাল আনন্দ র‍্যালি মুরাদনগরে ছয় বছরের শিশু ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগে একজন গ্রেফতার বর্ষা এলেই মুরাদনগরে বেড়ে যায় নৌকার চাহিদা বেঈমান মুনাফেকদের চেহারা এই সিটি নির্বাচনে ভেসে উঠেছে : এমপি বাহার  সদরের কালির বাজারে দুই সেনা কর্মকর্তা ও কলেক শিক্ষকের বাড়িতে ডাকাতি কুমিল্লায় আওয়ামী লীগের ৭৩তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালিত কুমিল্লায় দুই ধর্ষকের যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দেবিদ্বারে বড় ভাইয়ের ছুরিকাঘাতে ছোট ভাইয়ের মৃত্যু কুমিল্লায় ৬০ কেজি গাঁজা সহ দুই জন আটক কর্মক্ষেত্রে নিজেদের কর্তব্য ও ভূমিকা সম্পর্কে আদালতের সহযোগী কর্মচারীদের দায়িত্বশীল হতে হবে : সিনিয়র জেলা ও দায়রা জজ কুমিল্লা স্টেডিয়ামে মোহামেডানকে হারাল আবাহনী জাতীয় পদক প্রাপ্ত মতিন সৈকতকে দাউদকান্দি উপজেলা প্রশাসনের সংবর্ধনা চাকা ফেটে উল্টে যাওয়া বাসের ৪০ যাত্রীর সাত জন আহত পূজামন্ডপের ঘটনায় কুমিল্লা সিটি কাউন্সিলরসহ আটজন কারাগারে শুদ্ধাচার পুরস্কার পেলেন কুমিল্লা এলজিইডির নির্বাহী প্রকৌশলী নারায়নগঞ্জের পর কুমিল্লার বরুড়ায় জন্ম নেওয়া যমজ শিশুর নাম রাখা হলো পদ্মা-সেতু

সাফল্যের শীর্ষাসনে কাস্টমস এক্সাইজ ও ভ্যাট কমিশনারেট কুমিল্লা

সাদিক মামুন
  • আপডেট টাইম শনিবার, ৩ জুলাই, ২০২১
  • ২৭৮ দেখা হয়েছে
# সাহস ও উদ্যম নিয়ে রাজস্ব আদায়ে কাজ করে যাচ্ছেন কুমিল্লা কমিশনারেটের কর্মকর্তা-কর্মচারিগণ।

বিশাল কর্মযজ্ঞের একটি প্রতিষ্ঠান।কাস্টমস,এক্সাইজ ও ভ্যাট কমিশনারেট। ১৬টি সার্কেল ও ছয়টি বিভাগের এ প্রতিষ্ঠানের সদর দপ্তর কুমিল্লায়।যেখানে কর্মকর্তা-কর্মচারিসহ সকলেই অবিচল মানসিকতাসম্পন্ন।আর যাদের রয়েছে অসাধারণ বুদ্ধিমত্তা বা আইকিউ।

সময়টা খুব বেশি নয়, এবছরের কাছাকাছি। আর এসময়টিতে ওই প্রতিষ্ঠানের পেছনের সকল অর্জন পেছনে ফেলে এক অভাবনীয় বহুমাত্রিক সাফল্যের চিত্র তুলে আনলেন একটি বিচক্ষন, পরিশ্রমী টিম। যে টিমের নেতৃত্বে রয়েছেন সত্যিকারের স্বপ্নের কারিগর, একজন আশাবাদী ব্যক্তিত্ব মোহাম্মদ বেলাল হোসাইন চৌধুরী। যিনি কুমিল্লা কমিশনারেটের কমিশনারের দায়িত্ব পালন করছেন।

এনবিআরের অধীন দেশের ১২টি ভ্যাট কমিশনারেটের কারো গত জুন মাসের লক্ষ্যমাত্রা অর্জিত হয়নি। কিন্তু লক্ষ্যমাত্রার চেয়ে কুমিল্লার প্রবৃদ্ধি ৩৮ শতাংশ। গত বছরের জুনের তুলনায় এ প্রবৃদ্ধি ৬২ শতাংশ। চলতি বছরের মে মাসে ভ্যাট অনলাইন রিটার্ন জমায় টানা দশবার সেরা হয় কুমিলা। গেলো বছরের সেপ্টেম্বরে বছরের সেরা মাসিক ১৫৪ শতাংশ প্রবৃদ্ধিও কুমিল্লার।

কাস্টমস, এক্সাইজ ও ভ্যাট কমিশনারেট কুমিল্লার সাফল্যের গল্পে রয়েছে ভিন্নতা। এ ভিন্নতাকে আশাতীত, নজীরবিহীনও বলা যায়। কারণ অভাবনীয় এসব সাফল্যের নেপথ্যে রয়েছে দেড় শতাধিক কর্মকর্তার রাজস্ব আদায়ে বৈপ্লবিক নানান আনকোরা গল্প।

যেমন একজন রাজস্ব কর্মকর্তা জানতে পারেন বকেয়া টাকা দেয়ার মতো সামর্থ্য ইটভাটা মালিকের নেই। তিনি পরিচিত একজনের কাছে পরবর্তী সিজনের ইট অগ্রিম বিক্রয় করিয়ে দেন। বিক্রিত ৯ লাখ টাকা সরকারি কোষাগারে জমা করান। আরেক রাজস্ব কর্মকর্তা মৃত ব্যক্তির স্ত্রীর সাথে দেখা করে সন্তানদের বোঝান। মরহুমের রেখে যাওয়া সাতাশ বছরের পুরনো বকেয়া সাড়ে ৯লাখ টাকা আদায় করেন। অপেক্ষা ও অনুমতির পর চাঁদপুর জেলখানার জেলারের সাথে সাক্ষাত করে ৭লক্ষ টাকা বকেয়া আদায়। কুমিল্লায় এমন অসংখ্য চমকপ্রদ গল্পের সাফল্যিক জন্ম হয়েছে এক বছরে।এসব সাফল্যের নেপথ্যে রয়েছে নিবিড় নেতৃত্ব, তদারকি, পারস্পর্য, মনোনিবেশ ও দলগত অভিনিবেশ।

বছরের শুরুতে এনবিআরের চেয়ারম্যান আবু হেনা রাহমাতুল মুনিম মুজিব বর্ষ ও মহামারীতে চ্যালেঞ্জ গ্রহণের জন্য আহবান এবং বছরব্যাপী সার্বক্ষণিক তদারকি অব্যাহত রাখেন। এই অর্থবছরেই কুমিল্লা বিগত সব অর্থবছরের রেকর্ড ভেঙে সর্বোচ্চ রাজস্ব আদায় করেছে। করোনার এই ভয়াবহ নিদানকালেও কুমিল্লা গত অর্থবছরে রাজস্ব আদায় করেছে ৩১৩৪কোটি টাকা। এর আগে কুমিল্লা কমিশনারেটের ইতিহাসে এক অর্থবছরে (২০১৮-১৯ অর্থবছর) সর্বোচ্চ রাজস্ব আদায় ছিল ২৯৫৪ কোটি টাকা।

চলতি অর্থবছরে রাজস্ব আদায়ে নানামুখী উদ্যোগের ফলে এ অবিশ্বাস্য সাফল্য এসেছে বলে মনে করেন কুমিল্লা কমিশনারেটের সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাগণ। কমিশনার মোহাম্মদ বেলাল হোসাইন চৌধুরীর যোগদানের পর সুনির্দিষ্ট নির্দেশনা ও নিবিড় মনিটরিং সার্বিক ব্যবস্থাপনার ফলে রাজস্ব জমা ক্রমাগত বৃদ্ধি পেয়েছে।

চলতি বছর জন মাসে জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের জুন নির্ধারিত লক্ষ্যমাত্রা ৩৬৯কোটির বিপরীতে ৫১০কোটি টাকা আদায়। সিগারেট ব্যতীত অন্যান্য প্রচেষ্টা খাতে ২০২০ জুলাই থেকে ২০২১-মে পর্যন্ত মাসিক গড় রাজস্ব ৯৮ কোটি টাকা, চলতি বছর জুন মাসে প্রচেষ্টা খাতে ১৪৪শতাংশ প্রবৃদ্ধি নিয়ে ২৪০কোটি টাকা আদায়। অন্যান্য কমিশনারেটগুলো চলতি জুন মাসের লক্ষ্যমাত্রা অর্জন করতে পারেনি।

এ প্রসঙ্গ তুলে ধরে কুমিল্লা কমিশনারেটের কমিশনার মোহাম্মদ বেলাল হোসাইন চৌধুরী বলেন, মহামারীতে আগের বছরের প্রবৃদ্ধি ধরে রাখা কঠিন। সেখানে আমাদের প্রবৃদ্ধি ৬২শতাংশ। ভয়কে জয় করে অর্জনকে এ পর্যায়ে নেয়া সহজ ছিল না। একটি ব্যতিক্রমী পরিশ্রমী কর্মপ্রবণ উদ্যমী দলের পক্ষে এমন অর্জন সম্ভব। অর্থবছরের প্রথম থেকে দেড়শ সদস্যের টীমকে ৪৭টি জুম সভায় প্রশিক্ষিত ও নিবিড় মনিটরিং করা হয়েছে। প্রশিক্ষিত টীমের সদস্যরা ডোর টু ডোর গিয়ে সেবা দিয়ে রাজস্ব নিশ্চিত করেছে। সার্কেলগুলোর মধ্যে লাল-হলুদ-সবুজের সুস্থ প্রতিযোগিতার অভূতপূর্ব সাফল্যের অন্যতম কারণ। টীমের সদস্যরা রাত ১১টা পর্যন্ত মাঠে অফিসে থেকে সাফল্য তালিকার ওপরে আসতে প্রতিদ্বন্ধিতা করেছে। সর্বোপরি দেশপ্রেমে উদ্বুদ্ধ টীম সদস্যদের পরিশ্রম ও সাফল্যের পিপাসা কুমিল্লা কমিশনারেটকে রাজস্ব প্রবৃদ্ধি ও অনলাইন রিটার্ন জমায় উপর্যুপরি সাফল্য এনে দিয়েছে। কমিশনারেটের অধীন ১৬টি সার্কেল ও ছয়টি বিভাগের সবাই আন্তরিক ছিল।

কুমিল্লা বিভাগের বিভাগীয় কর্মকর্তা মোহাম্মদ ছালাউদ্দিন রিপন বলেন,রাজস্ব আদায়ের জন্য বিভাগ হতে একাধিক বিশেষ টিম গঠন করা হয়। রাজস্ব আদায়ের জন্যে প্রত্যন্ত অঞ্চলে স্বশরীরে যেতে হয়। পর্যান্ত জনবল ও সার্কেল পর্যায়ে গাড়ি না থাকা সত্তে¡ও কর্মকর্তাদের আন্তরিক পরিশ্রমের ফলে এ অর্জন সাধিত।

কুমিল্লা কমিশনারেটের অতিরিক্ত কমিশনার জনাব মোঃ আবদুল হাকিম বলেন, করোনাকালে কুমিল্লা টিমে বিশেষ তৎপরতা অব্যাহত আছে। সাহস ও উদ্যম নিয়ে কর্মকর্তা-কর্মচারীগণ রাজস্ব আদায়ে কাজ করে যাচ্ছেন। যথাযথ রাজস্ব আদায় নিশ্চিতে উদ্যোগী হওয়ায় রাজস্ব আহরণ উল্লেখযোগ্য হারে বৃদ্ধি পেয়েছে।

রাজস্ব বৃদ্ধিতে বেশকটি পদক্ষেপ গ্রহণ করেছে কুমিল্লা কমিশনারেট :

# প্রত্যেক সপ্তাহে জুম সভা করে কর্মকর্তাদের প্রশিক্ষন, তথ্য-উপাত্ত তুলনা ও অসংগতি পর্যালোচনা।
# ৬জন রাজস্ব কর্মকর্তাকে মনিটরিং করার জন্যে সদর দপ্তরে বিশেষ সেল গঠন।
# বিভাগ ও সার্কেল হতে একাধিক কমিটি গঠন।
# সপ্তাহের সেরা কর্মকর্তাকে ‘কফি উইথ কমিশনার’ এ আমন্ত্রণ।
# নির্ধারিত কাজে সাফল্যের জন্য ‘অফিসার অব দ্য কমিশনারেট’ নির্বাচন।
# রাজস্ব সম্ভাবনার ক্ষেত্র চিহ্নিত করে রাজস্ব আদায়।
# যোগাযোগের মাধ্যম হিসেবে ভাইভার গ্রুপ চালু।
# জুন মাসে লাল-হলুদ থেকে ‘সবুজ’ লক্ষ্যমাত্রা অর্জনে করে ১৬টি সার্কেলের শ্বাসরুদ্ধকর প্রতিযোগিতা।
# সদর দপ্তর থেকে সার্কেল ও বিভাগে বিশেষ মনিটরিং টীম প্রেরণ।
# টেবিলে কোন সার্কেল লাল বা হলুদ থেকে সবুজে উত্তীর্ণ হলে সকলে মিলে অভিনন্দন জানানো;
# উৎসে মূসক কর্তনকারীর অনুসরণীয়,করণীয় ও দায় সম্পর্কে অবহিতকরণ।
# প্রত্যেক উৎসে কর্তনকারী প্রতিষ্ঠানের চলমান প্রকল্পের তালিকা সংগ্রহ করা।
# পূর্ববর্তী অর্থবছরের সকল অনাদায়ী বকেয়া রাজস্ব আদায়।
# সকল বিভাগ ও সার্কেলের ছয় জেলার প্রত্যন্ত অঞ্চলের গমন।
# রাজস্ব বৃদ্ধির নতুন নতুন পদ্ধতি অবলম্বন করা ও সকল সেরা পারফর্মারকে কাজের স্বীকৃতিস্বরূপ পুরস্কার ঘোষণা।

প্রসঙ্গত, সংযোগ ও উৎপাদনশীলতার সাথে ‘আলোকিত কাস্টমস, আলোকিত দেশ’ ও ‘অতিক্রম নয় ব্যতিক্রম’ এর মতো বিভিন্ন অনুপ্রেরণামূলক শ্লোগানে উদ্বুদ্ধ হয়ে অর্থবছরের প্রথম থেকে কাজ করছে কুমিল্লা টিম। কুমিল্লার মতো কাস্টমস বিভাগের সমন্বিত সাফল্যে বাংলাদেশের অর্থনীতি এগিয়ে যাবে দুর্বার গতিতে। সুখী-সমৃদ্ধ স্বপ্নের উন্নত বাংলাদেশ গঠনে অহর্নিশ কাজ করছে বাংলাদেশ কাস্টমস। আর সে স্বপ্ন পূরণের পথে অগ্রণী ভূমিকা পালন করছে জাতীয় রাজস্ব বোর্ড। কাস্টমস, এক্সাইজ ও ভ্যাট কমিশনারেট, কুমিল্লা এনবিআরের প্রত্যক্ষ নির্দেশনায় কাজ করে যাচ্ছে।

# দেশ-বিদেশের গুরুত্বপূর্ণ খবর জানতে প্রতিসময় (protisomoy) ফেসবুক পেইজে লাইক দিয়ে অ্যাকটিভ থাকুন।

Last Updated on July 3, 2021 9:57 pm by প্রতি সময়

শেয়ার করুন
এই ধরনের আরও খবর...

বিস্তারিত জানতে ছবিতে ক্লিক করুন।

themesba-lates1749691102
error: Content is protected !!